ঢাকা, বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪,
সরকার অনুমোদিত নিবন্ধন নম্বর ১৯১
Reg:C-125478/2015

সড়কে নেই বাড়তি চাপ

ডেস্ক রিপোর্ট


প্রকাশ: ২০ জুন, ২০২৪ ১৬:৪৩ অপরাহ্ন | দেখা হয়েছে ৫৪ বার


সড়কে নেই বাড়তি চাপ

ঢাকা: ঈদুল আজহার ছুটি শেষে আজ বৃহস্পতিবার (২০ জুন) সকাল থেকেই রাজধানীর সড়কগুলোতে যানবাহনের চাপ কম দেখা গেছে। সরকারি-বেসরকারি অফিস খোলার পরও সকালে তেমন যানজটের সৃষ্টি হয়নি।



সকালে অফিস শুরুর সময় কিছুক্ষণ যানবাহনের চাপ থাকলেও তা দ্রুতই স্বাভাবিক হয়ে যায়। রাজধানীর প্রবেশদ্বারগুলোতেও তেমন কোনো যানজট ছিল না।

 

এদিকে সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত সরেজমিনে যাত্রাবাড়ী, সায়েদাবাদ, গুলিস্তান, মতিঝিল, পল্টন, শাহবাগ, কারওয়ান বাজারসহ বিভিন্ন সড়ক ঘুরে দেখা গেছে, সড়কে যানবাহনের সংখ্যা কম। রিকশা ও সিএনজিচালিত অটোরিকশা ছাড়াও কিছু গণপরিবহন চললেও যাত্রী কম ছিল।

বুধবার (১৯ জুন) ঈদের ছুটি শেষে প্রথম কর্মদিবসেও রাজধানীর সড়কগুলোতে তেমন যানজট দেখা যায়নি। তবে, আজ বৃহস্পতিবার (২০ জুন) বুধবারের চেয়েও যানবাহনের চাপ কম ছিল। 

এর কারণ হিসেবে ধারণা করা হচ্ছে, অনেকেই এখনো ছুটি কাটাচ্ছেন। আবার ঈদের ছুটি শেষে অনেকেই ঢাকা ছেড়ে গেছেন। এছাড়াও, স্কুল-কলেজ বন্ধ থাকায় অনেক পরিবার বাচ্চাদের নিয়ে ঢাকায় ফিরেনি। ফলে আজ সকালে রাস্তাঘাটে যানবাহনের চাপ অনেকটা কম ছিল।

দুপুরে বাসে করে যাত্রাবাড়ী থেকে বাংলামোটর যাচ্ছিলেন একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা মেহেদী হাসান মাহিম। ঈদের ছুটি শেষে ঢাকার সড়কের কেমন চিত্র দেখেছেন জানতে চাইলে তিনি বাংলানিউজকে বলেন, ঈদের ছুটি শেষ হলেও ঢাকার রাস্তা এখন অনেকটাই ফাঁকা। স্কুল-কলেজ বন্ধ থাকায় অনেকে এখন বাড়ি থেকে ফেরেনি। যাত্রাবাড়ী সায়দাবাদ হয়ে আসার সময় দেখলাম, টার্মিনালগুলোতে যাত্রীদের তেমন চাপ নেই। এমন ফাঁকা ঢাকাই আসলে সবার পছন্দ, কোনো যানজটের ভোগান্তি নেই। তবে গণপরিবহন পেতে যাত্রীদের কিছুটা অপেক্ষা করতে হয়েছে। 

ব্যক্তিগত কাজে গাজীপুর থেকে বাসে করে এক ঘণ্টার কম সময়ে গুলিস্তান এসেছেন ওমর ফারুক। অন্য সাধারণ কর্মদিবসে তার এত টুকু পথ আসতে দুই থেকে আড়াই ঘণ্টার বেশি সময় লাগতো।

ওমর ফারুক বাংলানিউজকে বলেন, সকালে গাজীপুর থেকে এক ঘণ্টায় ঢাকার গুলিস্তানে এসেছি। ঈদে মানুষ ছুটিতে থাকায় এটা সম্ভব হয়েছে। আর নয় তো অন্য সময় এত দ্রুত আসা কখনো কল্পনা করা যায় না। গাজীপুরেও কোনো ধরনের যানজট পোহাতে হয়নি। কিন্তু কদিন পর থেকে এ শান্তি আর পাওয়া যাবে না।

এদিকে সকাল থেকে রাজধানীর সড়কের যানজট ও গণপরিবহনে চিত্র অনেকটা ফাঁকা থাকলেও তুলনামূলক ভিড় ছিল মেট্রোরেলে। সকালে বৃষ্টির কারণে এবং দ্রুত গন্তব্যে পৌঁছাতে মেট্রোরেলে অফিসগামীদের ভিড় লক্ষ্য করা গেছে।

সকালে মেট্রোরেলে করে মিরপুর থেকে মতিঝিল এসেছেন বেসরকারি কর্মকর্তা আসাদ আবেদিন জয়। তিনি বাংলানিউজকে বলেন, বৃষ্টির কারণে সকালে মেট্রোরেলে যাত্রীদের চাপ ছিল বেশি। কিন্তু নিচের রাস্তা অনেকটাই ফাঁকা দেখলাম, সড়কে তেমন যানবাহন চোখে পড়েনি।


   আরও সংবাদ